সারা বাংলা

ঈশ্বরদীতে বাস খাদে পড়ে আহত আট

ঈশ্বরদী প্রতিনিধি

ঈশ্বরদীতে বাস খাদে পড়ে আহত হন আট জন। মঙ্গলবার রাত আনুমানিক পৌনে ৮ ঘটিকা নাগাদ ঈশ্বরদী ঢাকা মহাসড়কের হারুখোলা নামক স্থানে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

এ দুর্ঘটনায় গুরুতর আহত হয়েছে ৮ জন। তবে ঈশ্বরদী ফায়ার সার্ভিসের তথ্য অনুযায়ী আহতের সংখ্যা মাত্র ৩।

আহতরা হলেন, রাজশাহীর বাঘা এলাকার মো. আজিজুল হকের ছেলে মো. আলম, পুরাতন ঈশ্বরদী মো. তালেব সরদারের ছেলে মো. জিল্লুর রহমান (৩৫) এবং ঈশ্বরদী পৌর এলাকার মো. মোকা এর মেয়ে মৌসুমী (৩০)।

আহত মো.তহিদুল ইসলাম জানান, ঢুলটি তেল পাম্প থেকে তেল তুলে নিয়ন্ত্রনহীন গতিতে গাড়ী চালাতে থাকেন চালক। অতঃপর উল্লেখিত স্থানে আসলে অপরদিক থেকে আসা একটি গাড়িকে রং সাইডে গিয়ে সজোরে ধাক্কা মেরে নিয়ন্ত্রন হারিয়ে বাসটি নিজেই পাশের জঙ্গলে ঢুকে যায়।

প্রতক্ষ্যদর্শী এবং ফায়ার সার্ভিসের তথ্যানুসারে, ঢাকা থেকে ছেড়ে আসা ঈশ্বরদীর গতির দানব খ্যাত সুপার সনি’র একটি কোচের সাথে উল্লেখিত স্থানে অপরদিক থেকে আসা একটি ট্রাক্টরের মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এতে বাসটি নিয়ন্ত্রন হারিয়ে রাস্তার পাশের গর্তে পরে যায়। এসময় বাসের জানালা এবং সামনের কাচ গুড়োগুড়ো হয়ে ভেঙ্গে যায় এবং গাড়িতে থাকা প্রায় সবাই আহত হন। অপরদিকে ট্রাক্টরটি ভেঙ্গে দুমড়ে মুচড়ে যায়।

ঈশ্বরদী ফায়ার সার্ভিসের ওয়্যার হাউজ ইন্সপেক্টর অপু কুমার মন্ডল জানান, হারু খোলাতে একটি বাস এবং একটি ট্রাক্টরের মুখোমুখি সংঘর্ষের খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিসের দুটি ইউনিট দ্রুত ঘটনাস্থলে পৌঁছায় এবং সেখান থেকে তিন জনকে উদ্ধার করে ঈশ্বরদী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসার জন্য প্রেরণ করা হয়েছে।

ঈশ্বরদী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের জরুরী বিভাগে দ্বায়িত্বরত ডাক্তার মো. শাহরিয়ার জানান, দুর্ঘটনায় আহত অবস্থায় তিন জনকে চিকিৎসার জন্য হাসপাতাল আনলে এক জনকে ভর্তি করা হয়েছে , আরেক জনকে প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে ছাড়পত্র দেয়া হয়েছে এবং অপর একজনের অবস্থা গুরুতর হওয়ায় তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button